রোহিঙ্গাদের ঈদ উপহার দিলেন প্রধানমন্ত্রী।

prothomalo-bangla_2021-07_a95d70da-eb9f-4150-adc5-7ec139510d6e_WhatsApp_Image_2021_07_16_at_5_43_20_PM.jpeg

ডেস্ক রিপোর্ট, ডেইলি সুন্দরবনঃ নোয়াখালীর ভাসানচরে ২৮০০ রোহিঙ্গাকে ঈদ উপহার হিসেবে ১৩ ধরনের জীবিকার সামগ্রী পাঠিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তাঁদের জীবিকার পথ সুগম করতে এ উপহার পাঠানো হয়।

প্রথমবারের মতো জীবিকার এসব সামগ্রী পেয়ে স্বস্তি প্রকাশ করেছেন নানা বয়সের নারী-পুরুষ। কারণ, নিরাপদ আশ্রয় পেলেও জীবিকা নির্বাহ নিয়ে হতাশায় ভুগছিলেন তাঁরা। কক্সবাজারের রোহিঙ্গা শিবিরের ওপর চাপ কমাতে সাত মাস আগে রোহিঙ্গাদের প্রথম দলটিকে নোয়াখালীর ভাসানচরে সরিয়ে নেওয়া হয়েছিল। সব মিলিয়ে আট ধাপে যাওয়া ১৮ হাজারের বেশি রোহিঙ্গা এখন বাস করছে নোয়াখালীর ওই দ্বীপে।

জীবিকা সামগ্রী হিসেবে জাল পেয়েছেন রোহিঙ্গা জিয়াউর রহমান। ওই জাল জিয়ার হাত থেকে নিয়ে উচ্ছ্বসিত তাঁর সাত বছর বয়সের ছেলে। উপহারসামগ্রীর মধ্যে রয়েছে মাছ ধরার ৮০০ জাল, ১০০টি সেলাই মেশিন, ৫০টি রিকশা ভ্যান, দেশি পাঁচ হাজার হাঁস, দেশি পাঁচ হাজার মুরগি, চুল কাটার ৪৫ সেট সরঞ্জাম, জুতা সেলাইয়ের ২৮ সেট সরঞ্জাম, রিকশা ভ্যান মেরামতের ২৫ সেট সরঞ্জাম, ইলেকট্রিশিয়ানের মেশিনপত্র ৭ সেট, কাঠমিস্ত্রির যন্ত্রপাতি ৫০ সেট, মুদিদোকানের জিনিসপত্র দেওয়া হয় ১০০ জনকে, দেশি ছাগল ১০০টি ও ২০০ জনকে দেওয়া হয় মাছের পোনা। জীবিকার নানা সামগ্রী পেয়ে এসব রোহিঙ্গারা সন্তুষ্টি প্রকাশ করেছেন।

জীবন বাঁচাতে প্রতিবেশী দেশে পালিয়ে আসা এসব মানুষ বলছেন, রাখাইনের আদিনিবাসে ফিরে যাওয়াটাই তাঁদের চূড়ান্ত লক্ষ্য। যদিও মিয়ানমারের সেনা অভ্যুত্থান তাঁদের যাওয়াটা আরও অনিশ্চিত করে তুলেছে। নিজেদের পূর্বপুরুষের ভিটেমাটিতে ফিরতে ভাসানচরের রোহিঙ্গারা সহায়তা চান আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

scroll to top